1. multicare.net@gmail.com : banglartv.net :
বৃহস্পতিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০২:১৮ পূর্বাহ্ন

আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের বিচারপতি আমির হোসেনের সিএমএইচে মৃত্যুবরণ !

রিপোর্টারের নাম:
  • আপডেট: বুধবার, ২৫ আগস্ট, ২০২১
  • ১৪ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতি এবং আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের সদস্য বিচারপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আমির হোসেন আর নেই (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। মঙ্গলবার (২৪ আগস্ট) সকাল ৮টার দিকে রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) তিনি মারা যান। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, দুই কন্যা ও এক পুত্র সন্তান রেখে গেছেন। তার প্রথম নামাজে জানাজা আজ বাদ জোহর সুপ্রিমকোর্ট প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে অংশগ্রহণ করেন তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা.মো: মুরাদ হাসান এবং তার নামাজে জানাজায় আরও অংশ নেন প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন, আপিল বিভাগের বিচারপতি, হাইকোর্টের বিচারপতি, অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন, সিনিয়র আইনজীবীসহ সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবীরা। নামাজে জানাজা শেষে বীর মুক্তিযোদ্ধা হিসাবে তাকে দেয়া হয় গার্ড অফ অনার। পরে গ্রামের বাড়ি কিশোরগঞ্জের রওনা হয় তার মরদেহবাহী ফ্রিজার ভ্যান। পরবর্তীতে তার দ্বিতীয় নামাজে জানাজা বিকাল সাড়ে পাঁচটায় তার নিজ এলাকা
কিশোরগঞ্জের নিকলী ঈদগাহ মাঠে এবং সন্ধ্যা সাতটায় তৃতীয় নামাজে জানাজা মীর্জাপুর তাছাউফ মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হয়েছে। পরবর্তীতে মীর্জাপুরে তাদের পারিবারিক কবরস্থানে তাকে রাস্ট্রীয় মর্যাদায় চির নিদ্রায় দাফন করা হয়েছে।
বিচারপতি আমির হোসেনের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন রাষ্ট্রপতি মো: আবদুল হামিদ। এক শোক বার্তায় রাষ্ট্রপতি বলেন,
বিচারপতি আমির হোসেন বিচারকের দায়িত্ব পালনকালে সততা ও দক্ষতার পরিচয় দিয়েছেন। রাষ্ট্রপতি মরহুম বিচারপতি আমির হোসেনের রুহের মাগফিরাত কামনা করেন এবং তার শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।

বিচারপতি আমির হোসেনের মৃত্যুতে তার প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে আজ বসছেনা সুপ্রিম কোর্টের আপিল ও হাইকোর্ট বিভাগ। তার মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন। শোকবার্তায় তিনি মরহুমের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন। বিচারপতি আমির হোসেন ১৯৫৭ সালের ৩০ নভেম্বর কিশোরগঞ্জের নিকলীতে জন্মগ্রহণ
করেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এল.এল.বি ও এল.এল.এম ডিগ্রি অর্জনের পর ১৯৮৪ সালের ২২ ফেব্রুয়ারি বিচার বিভাগে মুন্সেফ (সহকারী জজ) হিসেবে নিয়োগ পান। পরে ২০০৯ সলের ৬ মে জেলা ও দায়রা জজ হিসেবে পদোন্নতি পান তিনি।

গাজীপুর জেলা জজ থাকা অবস্থায় তিনি ২০১৫ সালের ১২ ফেব্রুয়ারি হাইকোর্টের অতিরিক্ত বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ পান। দুই বছর পর ২০১৭ সালের ১২ ফেব্রুয়ারি তাকে স্থায়ী
বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়। সবশেষে ২০১৭ সালের ১১ অক্টোবর বিচারপতি আমির হোসেনকে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১ এ সদস্য হিসাবে নিয়োগ দেওয়া হয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন

www.bmftelevision.com© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত।

Developer By Zorex Zira

Design & Developed BY: Al Popular It Software